ভুল সবই ভুল (কবুতরের কেস স্টাডি) সপ্তম পর্ব

ভুল সবই ভুল (কবুতরের কেস স্টাডি) সপ্তম পর্ব “যে লোক সৎকাজের জন্য কোন সুপারিশ করবে, তা থেকে সেও একটি অংশ পাবে। আর যে লোক সুপারিশ করবে মন্দ কাজের জন্যে সে তার বোঝারও একটি অংশ পাবে। বস্তুতঃ আল্লাহ সর্ব বিষয়ে ক্ষমতাশীল।“(সূরা আন নিসাঃআয়াত-৮৫) একদিন বেশ কয়েক বছর আগে আমি মিরপুর ১ নং সেকশন এ এক বাসাই গেলাম সেটাও রোজার মাস ছিল। এশার আযান দিবে কিছুক্ষণের মদ্ধে বাসার সবাই দেখলাম ইফতার নিয়ে বসে আছে। অবাক হলাম! প্রশ্ন করলাম কি ব্যাপার? আপনারা সবাই এভাবে এখনও ইফতার না করে বসে আছেন? তারা একে অপরের দিকে চাইল এরপর মিচকি হেসে বলল, আসলে তোমরা তো জান না। যে কোরআন এ বলা আছে এ ব্যাপারে, আমি বললাম হা আলহামদুলিল্লাহ আমি জানি,আল্লাহ্‌ বলেছেন,আর পানাহার কর যতক্ষণ না কাল রেখা থেকে ভোরের শুভ্র রেখা পরিষ্কার দেখা যায়। অতঃপর রোযা পূর্ণ কর রাত পর্যন্ত।“ (সূরা বাকারাঃআয়াত-১৮৭) (more…)
Read more
  • 0

কবুতরের রোগ প্রতিরোধ ও বর্ষা কালীন মাসিক ছক (কবুতরের কেস স্টাডি)

কবুতরের রোগ প্রতিরোধ ও বর্ষা কালীন মাসিক ছক (কবুতরের কেস স্টাডি) “আমি যখন রোগে আক্রান্ত হই তখন তিনিই (আল্লাহ) আমাকে রোগমুক্ত করেন।” (সূরা শুআরা : আয়াত ৮০) বুখারী শরীফে বর্ণিত একখানা হাদীসে রাসূলেপাক (সা.) ইরশাদ করেন, “আল্লাহ এমন কোন রোগ প্রেরণ করেন না যার আরোগ্য নেই.” “আমি কোরআনে এমন বিষয় নাযিল করি যা রোগের সুচিকিৎসা এবং মুমিনের জন্য রহমত।“ (সূরা বনী ইসরাঈল ৮২) একবার এক ডাক্তার রুগীকে এক বোতল ঔষধ দিয়ে বললেন প্রতিদিন একদাগ করে খেতে। আর ১ সপ্তাহ পর দেখা করতে। রোগী এক সপ্তাহ পর আবার আসলেন অবস্থা আরও খারাপ...! ডাক্তারের উপর রেগে আগুন কি ডাক্তার সাব কি ঔষধ দিলেন রোগ ভাল হয় না? ডাক্তার রোগীকে জিজ্ঞাস করলেন ঔষধ ঠিকমত খেয়েছিলেন তো? রোগী উত্তর দিল হ আপনি যেভাবে এক দাগ করে খেতে বলছিলেন সেই ভাবেই খাইছি। ডাক্তার বললেন কয় দেখি ফাইল? রোগী বোতল বের করে দেখালেন...। ডাক্তার দেখলেন ঔষধ যেমন ছিল তেমনই আছে...কি ব্যাপার আপনি তো দেখি ঔষধ খান নাই একটুও. রোগী এবার আরও রেগে গেল আপনি কি আমারে ঔষধ কাইতে বলছিলেন নাকি দাগ খাইতে বলছিলেন...আমি তো আপনার কথামত একদাগ করে প্রতিদিন (বোতলের গায়ে যে দা…
Read more
  • 1

কবুতরের পানিশূন্যতা Dehydration

পানিশূন্যতা (Dehydration) পাখির দ্রুততম মৃত্যুর অন্যতম একটি কারন। এই সমস্যা তাড়াতাড়ি সমাধান করা কঠিন এবং পাখি যদি খুব বেশি সময় এই অবস্থাই থাকে তাহলে আরও সুস্থ করে তোলা কঠিন হয়ে যায়। পানি ছাড়া সূর্যের আলোর মধ্যে কয়েক ঘন্টা থাকা মানে কবুতরের নিশ্চিত মৃত্যু। সম্ভাব্য সর্বোত্তম সমাধান খুব মূল্যবান যদি রক্তের মধ্যে জলের dehydration এড়ানো হয়। আসুন দেখি কিভাবে এই রোগটাকে সহজে প্রতিরোধ করা যায় । আপনি dehydration প্রতিরোধে কয়েকটি সহজ ধাপ গ্রহণ করে শুরু করতে পারেন। সবসময় বিশুদ্ধ পানি সরবরাহ করতে হবে। আপনি যখন আপনার খামারে আসেন তখন আপনার সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ কাজ হল পানির পাত্রটিকে নিয়মিত পরিষ্কার করে জলপূর্ণ করা। গরম আবহাওয়ায় বেশ কয়েকবার এরূপ জল ভর্তি করা প্রয়োজন, এবং এটা করতে যদি আপনার সময় না থাকে তবে অধিক পানি ধারণকারী পাত্র ক্রয় করে অথবা একটি অতিরিক্ত পাত্র যোগ করতে হবে । এভাবে আপনি নিজেকে কবুতরের বীয়োগ বিষাদ থেকে নিজেকে রক্ষা করতে পারেন।   (more…)
Read more
  • 0